সামাজিক ব্যবসা ও এর মূলনীতি (Social Business)

সামাজিক ব্যবসা ও এর মূলনীতি (Social Business)

সামাজিক ব্যবসা হচ্ছে এমন ধরণের ব্যবসা যেখানে উদোক্তা বা বিনিয়োগকারী একটি সামাজিক সমস্যা সমাধানের জন্য ব্যাক্তিগত আশা ছাড়াই বিনিয়োগ করেন। সামাজিক ব্যবসা বলতে বুঝায় যেটা সমাজ উন্নয়নে এবং সমাজ বদলে দেওয়ার ভুমিকা রাখে । সামাজিক ব্যবসার নিজের যাবতিয় ব্যয় মেটারে হয়। সামাজিক ব্যবসা লোকসানহীন এমন প্রতিষ্ঠান যা লাভ বন্টন না করে একটি সামাজিক সমস্যা সমাধানের লক্ষ্যে উথসর্গকৃত।

বিনিয়োগের টাকা আসবে সকল স্তরের মানুষের কাছ থেকে । অনুবাদ নির্ভর কর্মসুচির একটি সমস্যা হচ্ছে এটা সবসময় কারও সিদ্ধান্তের ওপর নির্ভরশীল। এ জাতীয় প্রতিষ্ঠান নিজের পায়ে দাঁড়াতে পারে না। কারণ টাকা ব্যবহারের ক্ষেত্রে দাতব্য কর্ম হচ্ছে একমুখী রাস্তা । কিন্তু দাতব্য কর্মসূচিকে যদি সামাজিক ব্যবসায় রুপান্তরিত করা যায় তাহলে তা সামাজিক সমস্যা সমাধানের  একটি শক্তিশালী কাঠামোতে পরিণত হয়।


সামাজিক ব্যবসায় মূল উদ্দেশ্য শুধু মুনাফা নয় বরং বিনা লাভে সে ব্যবসার সাথে সমাজকে সমৃদ্ধ করা, সামাজিক দায়বদ্ধাতা থেকে সমাজের জন্য, সমাজের মানুষের জন্য কিছু করা। বিশেষ করে যারা সবচেয়ে সুবিধা বঞ্চিত তাদের সর্বোতম উপায়ে সেবা করা সামাজিক ব্যবসার মূলনিতি।


সামাজিক ব্যবসার মূলনিতি ৭ টি । সেগুলো নিন্মরুপঃ


১। সারিদ্র বিমোচনসহ এক বা একাধিক বিষয় যেমন- শিক্ষা, স্বাস্থ্য, প্রযুক্তি ও পরিবেশ খাতে বিরাজমান সমস্যার সমাধানের লক্ষ্যে প্রতিষ্ঠান ব্যাক্তিগত মুনাফাহীন কল্যাণকর ব্যবসা।


২।সকলের অর্থনৈতিক সক্ষমতা অর্জন করাই এ ব্যবসার লক্ষ্য।

৩। সামাজিক ব্যবসার বিনিয়োগকৃত শুধু তাদের বিনিয়োগকৃত অর্থই ফেরত পাবে। এর বাইরে কোনো প্রকার লভ্যাংশ নিতে পারবে না।

৪। বিনিয়োগকৃত তাদের বিনিয়োগকৃত অর্থ ফেরত নেওয়ার পর বিনিয়োগকৃত আয়ের মুনাফা কোম্পানি সম্প্রসারণ কাজে ব্যবহৃত হবে।

৫। এ ব্যবসা হবে পরিবেশবান্ধব।

৬। এখানে যারা কাজ করবেন তারা ভালো কাজের পরিবেশ ও চলমান বাজার অনুযায়ী বেতন পাবেন। 

৭। সামাজিক ব্যবসা হবে আনন্দের সাথে ব্যবসা।

Post a Comment

Previous Post Next Post